গায়েত্রীর প্রেমে পড়ে স্ত্রী মিতু’কে খুন করান বাবুল আক্তার

সিটিজি ভয়েস টিভি ডেস্ক:

পাঁচ বছর আগে ঘটে যাওয়া চট্টগ্রামের মাহমুদা খানম মিতু হত্যা মামলার বাদী ছিলেন স্বামী সাবেক পুলিশ সুপার (এসপি) বাবুল আক্তার। এবার স্বামীই হলেন আসামী।

পিবিআই সূত্রে জানা গেছে এক কক্সবাজারে কর্মরত অবস্থায় গায়ত্রী অমর শিং নামে এক এনজিও কর্মীর সঙ্গে পরকীয়ায় জড়িয়ে পড়ে বাবুল আক্তার। বিষয়টি জানতে পারে মিতু সেই থেকেই পারিবারিক কলহ লেগেই থাকতো।

আর এসব কারণেই বাবুল আক্তার নিজেই স্ত্রী মাহমুদা খানম মিতুকে খুনের পরিকল্পনা করেন। স্বামী বাবুলের নির্দেশে খুন করা হয় মিতুকে।

গত পাঁচ বছর ধরে চলছিলো এই মামলার তদন্ত। নানা তথ্য প্রমাণ অনুসন্ধানে গিয়ে পিবিআই জানতে পারে স্ত্রী মিতু হত্যার সঙ্গে মামলার বাদী স্বামী বাবুল আক্তারই জড়িত। ঘটনা মোড় নেয় অন্য দিকে। মামলা হয় তার নামে। কিন্তু যার সাথে পরকীয়ার জেরে স্ত্রীকে হত্যা কে সেই গায়েত্রী?

পুলিশের তদন্ত এবং মিতুর বাবার কাছ থেকে জানা গেছে সেই এনজিও কর্মী গায়েত্রীর পরিচয়। তার পুরো নাম গায়েত্রী অমর সিংহ। বর্তমানে সুইজারল্যান্ড অথবা পূর্ব আফ্রিকার কোনো দেশে জাতিসংঘের শরণার্থী সংস্থা-ইউএনএইচসিআরের প্রটেকশন অফিসার হিসেবে কর্মরত গায়েত্রী। তবে তার অবস্থান সম্পর্কে এখনও নিশ্চিত নয় পুলিশ। মামলার বিষয়ে তাকেও জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে বলে জানা গেছে।

জানা যায়, গায়েত্রী অমর সিংহ জাতিসংঘের শরণার্থী সংস্থা-ইউএনএইচসিআরের ফিল্ড অফিসার হিসেবে কক্সবাজারে কর্মরত ছিলেন। তখনই তার সঙ্গে বাবুল আক্তারের সম্পর্ক হয়। ব্যক্তিগত জীবনে গায়েত্রী বিবাহিত এবং তার একটি ছেলে রয়েছে।

মতামত